ঢাকা      রবিবার, ২০ জুন ২০২১, ৫ আষাঢ় ১৪২৮
IMG-LOGO
শিরোনাম

৫০ মডেল মসজিদের উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী

IMG
10 June 2021, 11:49 AM

ঢাকা, বাংলাদেশ গ্লোবাল: সারাদেশে নির্মান করা ৫৬০টি মডেল মসজিদের মধ্যে ৫০টি উদ্বোধন করা হবে। আজ বৃহস্পতিবার (১০ জুন) প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানের মাধ্যমে এসব মসজিদের উদ্বোধন করবেন ধর্মবিষয়ক মন্ত্রণালয় থেকে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বুধবার (৯ জুন) মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, প্রতিটি জেলা ও উপজেলায় একটি করে ‘মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র স্থাপন’ শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় মুজিববর্ষ উপলক্ষে সর্বমোট ৫৬০টি মসজিদ নির্মাণ করা হচ্ছে। প্রথম অবস্থায় ৫০টি মডেল মসজিদের নির্মাণ কাজ হয়েছে।

অনুমোদিত প্রকল্পের নকশা অনুযায়ী ৪০ শতাংশ জায়গার উপর জেলা পর্যায়ে ৪ তলা ও উপজেলার জন্য ৩ তলা এবং উপকূলীয় এলাকায় ৪ তলা মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতি কেন্দ্র নির্মাণের কাজ চলমান রয়েছে। এসব মসজিদ সরকারের নিজস্ব অর্থায়নে বাস্তবায়ন হচ্ছে।
তিন ক্যাটাগরিতে মসজিদগুলো নির্মিত হচ্ছে। এ-ক্যাটাগরিতে ৬৯টি চারতলা বিশিষ্ট মডেল মসজিদ নির্মিত হচ্ছে। এগুলো নির্মাণাধীন রয়েছে ৬৪টি জেলা শহরে এবং সিটি করপোরেশন এলাকায়। এগুলোর প্রতি ফ্লোরের আয়তন ২৩৬০.০৯ বর্গমিটার। ১৬৮০.১৪ বর্গমিটার আয়তনের বি-ক্যাটারির মসজিদ হবে ৪৭৫টি। এগুলো নির্মিত হচ্ছে সকল উপজেলায়। আর ২০৫২.১২ বর্গমিটার আয়তনের সি ক্যাটাগরির মসজিদ হবে ১৬টি উপকূলীয় এলাকায়। জেলা সদর ও সিটি করপোরেশন এলাকায় নির্মাণাধীন মসজিদগুলোতে একসাথে ১২০০ মুসল্লি নামাজ আদায় করতে পারবে। অপরপক্ষে উপজেলা ও উপকূলীয় এলাকার মডেল মসজিদগুলোতে একসাথে ৯০০ মুসল্লির নামাজ আদায়ের ব্যবস্থা থাকবে।


প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্ভাবিত মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে নির্মাণ করে সারাদেশে ইসলামী ভ্রাতৃত্ব ও প্রকৃত মূল্যবোধের প্রচার ও দীক্ষাদান, সন্ত্রাস ও নারীর প্রতি সহিংসতা রোধ এবং সরকারের উন্নয়ন কার্যক্রম ও সে বিষয়ে জনসচেতনতা বৃদ্ধি করা, পুরুষ ও নারী মুসল্লীদের জন্য নামাজ, ধর্মীয় শিক্ষা, প্রশিক্ষণ ও দ্বীনি দাওয়াতি কার্যক্রম পরিচালনার জন্য ভৌত সুবিধাদি সৃষ্টি করা, সর্বোপরি ইসলামিক জ্ঞান ও সংস্কৃতি সম্প্রসারণের মাধ্যমে ইসলামী মূল্যবোধের পরিচর্যা ও প্রসার করা এবং সততা ও ন্যায়বিচারের প্রতি মানুষের আনুগত্য সমর্থন সৃষ্টি করাই মূল উদ্দেশ্য ।

মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রগুলোতে যে সকল সুবিধা রাখা হয়েছে:

* নারী ও পুরুষদের পৃথক ওজু ও নামাজ আদায়ের সুবিধা
* প্রতিবন্ধী মুসল্লীদের টয়লেটসহ নামাজের পৃথক ব্যবস্থা
* ইসলামিক বই বিক্রয় কেন্দ্র
* ইসলামিক লাইব্রেরী
* অটিজম কর্ণার
* ইমাম ট্রেনিং সেন্টার
* ইসলামিক গবেষণা ও দীনি দাওয়া কার্যক্রম
* পবিত্র কুরআন হেফজখানা
* শিশু ও গণশিক্ষার ব্যবস্থা
* দেশী-বিদেশি পর্যটকদের আবাসন ও অতিথিশালা
* মরদেহ গোসল ও কফিন বহনের ব্যবস্থা
* হজ্জ যাত্রীদের নিবন্ধনসহ প্রশিক্ষণ
* ইমামদের প্রশিক্ষণ গাড়ী পার্কিং
* ইমাম-মুয়াজ্জিনের আবাসনসহ সাংস্কৃতিক কেন্দ্রে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য অফিসের ব্যবস্থা

যে ৫০টি মডেল মসজিদ উদ্বোধন করা হবে:
ঢাকার সাভার, চাঁদপুরের কচুয়া, কুমিল্লার দাউদকান্দি, নোয়াখালীর সুবর্ণচর, ফরিদপুরের মধুখালী ও সালথা, কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়া ও কুলিয়ারচর, মানিকগঞ্জের শিবালয়, রাজবাড়ী সদর, শরীয়তপুর সদর ও গোসাইরহাট, বগুড়ার সারিয়াকান্দি, শেরপুর ও কাহালু, নওগাঁর সাপাহার ও পোরশা, সিরাজগঞ্জ জেলা সদর ও উপজেলা সদর, পাবনার চাটমোহর, রাজশাহীর গোদাগাড়ী ও পবা, দিনাজপুরের খানসামা ও বিরল, লালমনিরহাটের পাটগ্রাম, পঞ্চগড়ের সদর ও দেবীগঞ্জ উপজেলা সদর, রংপুর জেলা সদর, মিঠাপুকুর উপজেলা সদর, পীরগঞ্জ, বদরগঞ্জ, ঠাকুরগাঁওয়ের হরিপুর, চুয়াডাঙ্গার সদরে, ময়মনসিংহের গফরগাঁও ও তারাকান্দা, চট্টগ্রাম জেলা সদর, লোহাগড়া, মিরসরাই ও সন্দ্বীপ, জামালপুরের ইসলামপুর ও উপজেলা সদর উপজেলা, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর ও বিজয়নগরে, ভোলা সদর, সিলেটের দক্ষিণ সুরমা, খাগড়াছড়ির পানছড়ি, কুষ্টিয়া সদর, খুলনার জেলা সদর এবং ঝালকাঠির রাজাপুর।

বাংলাদেশ গ্লোবাল/এমএস

বাংলাদেশ গ্লোবাল ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

সাম্প্রতিক খবর জানতে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ

সর্বশেষ খবর

আরো পড়ুন