ঢাকা      বৃহস্পতিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ৭ আশ্বিন ১৪২৮
IMG-LOGO
শিরোনাম

হাসপাতালের রোগীরা যেন সেবায় কষ্ট না পায়: সমাজকল্যাণ মন্ত্রী

IMG
29 July 2021, 7:15 PM

লালমনিরহাট, বাংলাদেশ গ্লোবাল: সমাজকল্যাণ মন্ত্রী নুরুজামান আহমেদ বলেছেন, হাসপাতালে চিকিৎসার মান আরও বাড়াতে যা করা প্রয়োজন তাই সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয় থেকে তাই করা হবে। কিন্তু রোগীদের যেন সেবা দিতে গিয়ে হয়রানি কিংবা গরীব মানুষ যেন কষ্ট যেন না পায়। সেদিকে চিকিৎসকদের খেয়াল রাখতে হবে।

বৃহস্পতিবার (২৯জুলাই) দুপুরে লালমনিরহাটের কালীগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে একটি অম্বুলেন্স ও দুটি অক্সিজেন জেনারেটর ও ১৫টি অক্সিজেন সিলিল্ডারসহ বিভিন্ন সামগ্রীর উদ্বোধনের সময় ভিডিও কনফারেন্সে সমাজ কল্যাণমন্ত্রী সমাজকল্যাণ মন্ত্রী নুরুজামান আহমেদ এসব কথা বলেন।

সমাজকল্যাণ মন্ত্রী বলেন, কালীগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে দীর্ঘদিন থেকে একটি অ্যাম্বুলেন্স দিয়েই চিকিৎসা সেবা দিয়ে আসছিল। যেটি পুরাতন হওয়ার কারণে নষ্ট হয়ে থাকতো। রোগীরা বেশি টাকায় বাহিরে গাড়ী নিয়ে রংপুর হাসপাতালে যেতেন। তাই হাসপাতালের চিকিৎসা উন্নত করতে দেয়া হয়েছে অত্যাধুনিক মডেলের একটি অম্বুলেন্স। এছাড়াও দুটি অক্সিজেন জেনারেটর ও ১৫টি অক্সিজেন সিলিল্ডারসহ বিভিন্ন সামগ্রী। শ্বাসকষ্ট জনিত রোগীরা এখন ভালো চিকিৎসা পাবে।

তিনি বলেন, করোনার সময় বিকাশের মাধ্যমে সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের অধীনে ২০২০-২১ অর্থবছরের বয়স্ক ভাতা, বিধবা ও স্বামী নিগৃহীতা ভাতা ও প্রতিবন্ধী ভাতা সুবিধাভোগীকে নগদ সহায়তা দেওয়া হয়েছে। যারা বাড়িতে বসে থেকে বিকাশের মাধ্যমে টাকা পেয়েছেন।

মন্ত্রী আরো বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয় সব সময় অসহায় পরিবারের পাশে কাজ করে যাচ্ছে। সমাজসেবা অধিদপ্তর থেকে প্রতিবন্ধী বয়স্ক ভাতা থেকে শুরু করে সব ধরনের সেবাই এখন অনলাইন ডাটাবেজে করা হচ্ছে। এতে ঘরে বসেই বিকাশের মাধ্যমে টাকা পেয়ে যাচ্ছেন উপহারভোগীরা। তিনি আরো বলেন, হাসপাতালের প্রধান বর্তমানে আমাদের এই পরিবারের একজন সদস্য। তিনি আমাদের সন্তান, সন্তানের প্রতি অনুরোধ রেখে বলতে চাই, এই এলাকার প্রত্যেক মানুষই আপনার প্রতি তাকিয়ে রয়েছেন। সে আশা ও স্বপ্ন যেন নষ্ট না হয় সেটি খেয়াল রাখতে হবে।


উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আব্দুল মান্নান এর সভাপতিত্বে স্বাগত বক্তব্য রাখেন উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা দেবব্রত কুমার রায়। কালীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আরজু মোঃ সাজ্জাদ হোসেন। বীর মুক্তিযোদ্ধা মহসিন টুলু, জেলা পুলিশিং কমিটির সাধারণ সম্পাদক অবসরপ্রাপ্ত অবসরপ্রাপ্ত সহকারী অধ্যাপক মিজানুর রহমান, কালীগঞ্জ প্রসক্লাবের সভাপতি আমিরুল ইসলাম হেলাল, যুবলীগের সভাপতি রেফাজ রাঙ্গা ও সিনিয়র নার্স মুক্তা রাণী রায়।

বাংলাদেশ গ্লোবাল/এমএন

এ বিভাগের আরো খবর

সর্বশেষ খবর

আরো পড়ুন