ঢাকা      রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ৭ বৈশাখ ১৪৩১
শিরোনাম

ফিলিস্তিনিদের 'সরিয়ে নেয়ার' পরিকল্পনা, জাতিসংঘের উদ্বেগ

IMG
27 February 2024, 9:34 AM

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক, বাংলাদেশ গ্লোবাল: রাফাহ-য় হামাসের বিরুদ্ধে অভিযান চালানোর আগে লক্ষ লক্ষ ফিলিস্তিনিকে দক্ষিণ গাজা থেকে অন্যত্র সরিয়ে নেয়ার পরিকল্পনা ইসরাইলের সামরিক বাহিনী মন্ত্রিসভাকে দিয়েছে। ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর দফতর থেকে সোমবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) এ কথা জানানো হয়েছে। তবে তাদের সরিয়ে কোথায় নেয়া হবে, তার কোন ইঙ্গিত দেয়া হয় নি।

প্রায় পাঁচ মাস ধরে হামাসের বিরুদ্ধে চলা যুদ্ধে ইসরাইলের প্রধান মিত্র যুক্তরাষ্ট্র, ফিলিস্তিনিদের নিরাপদে সরিয়ে নেয়ার আগে রাফাহ’য় স্থল অভিযান চালানোর বিরুদ্ধে ইসরাইলকে সতর্ক করেছে। গাজার সাথে মিশরের সীমান্তের একটু উত্তরে রাফাহ অবস্থিত, যেখানে ফিলিস্তিনিরা আশ্রয় নিয়েছেন। নেতানিয়াহু বলছেন, হামাসকে আক্রমণ করলে ইসরাইল কয়েক সপ্তাহের মধ্যে যুদ্ধে জিতে যাবে।

ফিলিস্তিনিদের কোথায় নেয়া হবে, তার বিস্তারিত পরিকল্পনা সোমবারের বিবৃতিতে দেয়া হয় নি। আর মিশর বলেছে তারা সীমান্ত খুলে দেবে না। গত বছরের ৭ অক্টোবর দক্ষিণ ইসরাইলে হামাসের হামলায় প্রায় ১ হাজার ২০০ জন নিহত হওয়ার পর ইসরাইলের ব্যাপক পাল্টা হামলায় গাজার বেশিরভাগ ধ্বংস হয়ে গেছে।

ইসরাইলি হামলায় প্রায় ৩০ হাজার ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে, যার বেশিরভাগ নারী ও শিশু। গাজার হামাস পরিচালিত স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এ তথ্য জানিয়েছে। ইসরাইল বলছে, তারা ১২ হাজার হামাস যোদ্ধা হত্যা করেছে। যুক্তরাষ্ট্র হামাসকে সন্ত্রাসী গোষ্ঠী হিসেবে গণ্য করে।

যে এলাকায় মানুষজনের ইতোমধ্যে মানবিক সাহায্য প্রয়োজন, সে এলাকায় ইসরাইলের আক্রমণের পরিকল্পনা আর বেসামরিক লোকদের দক্ষিণ গাজা থেকে সরিয়ে নেয়ার পরিকল্পনা নিয়ে জাতিসংঘ উদ্বেগ প্রকাশ করেছে। জাতিসংঘ মহাসচিব আন্টোনিও গুতেরেস সোমবার বলেন, গাজায় মানবিক সাহায্য এখনো ‘’একেবারে অপর্যাপ্ত’’ রয়ে গেছে এবং রাফাহ’য় ইসরাইলি আক্রমণ সেই প্রচেষ্টা মারাত্মক ভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করবে।

“শহরের উপর পূর্ণ মাত্রায় ইসরাইলি অভিযান যে শুধু সেখানে আশ্রয় নেয়া দশ লক্ষাধিক ফিলিস্তিনির জন্য ভীতিকর হবে, তাই না; এর ফলে ত্রাণ কর্মসূচি পুরোপুরি শেষ হয়ে যেতে পারে,” গুতেরেস বলেন।

সবশেষ খবর এবং আপডেট জানার জন্য চোখ রাখুন বাংলাদেশ গ্লোবাল ডট কম-এ। ব্রেকিং নিউজ এবং দিনের আলোচিত সংবাদ জানতে লগ ইন করুন: www.bangladeshglobal.com

সর্বশেষ খবর

আরো পড়ুন